Pre-celebration: an epidemic to an unrest society

It all started with some mobile operator. Somewhere between 2005 and 2008. Indian mobile operators started blackout days when no special price pack would work. Usually, these are the celebration days when people wish their friends and family. What do you do in this situation? You will probably send a wish in advance. So did the whole India. I could remember people started wishing ‘happy new year!’ on the last day of the December. I used to believe one can wish new year in the whole month of January. Not in the month of December!! But it was the 31st of December, so I could understand the eagerness of wishing in advance. I never thought this could lead to a series of changes in our society. In the very next year when December 31st also marked as blackout day people started wishing even before. complete article

জয়পুরের সুরঙ্গ পথে

হঠাৎ চোখ পড়ল একটা নির্দেশিকার দিকে। লেখা আছে "way to tunnel"। আমার আবার এসবের দিকে ঝোঁকটা একটু বেশি। তাই কাল-বিলম্ব না করে সন্ময়কে বললাম সুরঙ্গে যাবে? সন্ময় আমাদের দলের এক প্রতিভা বলতে পারা যায়। কোন বিষয়ে তার না নেই। সেনাবাহীনিতে যাওয়াই ওর জীবনের মুল উদ্দেশ্য। সে সূত্রে দীর্ঘদিন শরীর চর্চার মধ্যেই ছিল। বছর দুয়েক হল, সে পাঠ চুকিয়ে দিয়েছে। ধীরে ধীরে শরীরের বারোটা বাজছে। সারাদিন একভাবে বসে থেকে থেকে সবকটা জয়েন্টে জং ধরিয়েছে। এতদ সত্ত্বেও উন্মাদনার পারায় এতটুকুও ভাটা পড়েনি। তাই স্বভাবসুলভ ভঙ্গিতেই এদিক ওদিক কিছু না ভেবেই, একটু সুর কেটে উত্তর দিল "চ__লো__"। একে একে আমরা ৭ জনে সুরঙ্গে নাবতে শুরু করলাম। পথ বেশ সরু। এক একটা সিঁড়ির উচ্চতাও অনেকটা। সাবধানে নিচে নাবতে হয়। গল্পটাকে এগিয়ে নিয়ে জাওয়ার আগে এটা বলা দরকার আমরা এই সুরঙ্গ মুখে এলাম কিভাবে। সম্পূর্ণ নিবন্ধ